Random Posts

ভেড়ামারায় সরকারি রাস্তার উপর জমি দখল করে বাড়ি নির্মাণের অভিযোগ

চেতনায় কুষ্টিয়া প্রতিবেদক ॥ কুষ্টিয়ার ভেড়ামারা উপজেলার পল্লীতে সরকারি রাস্তার উপর জমি দখল করে বাড়ি নির্মাণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাসহ বিভিন্ন দপ্তরে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে। এ ব্যাপারে মৃত রশিক লস্কর এর পূত্র মজিবর লস্কর নামে একজন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবর লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে।
লিখিত অভিযোগ সুত্রে জানা গেছে, ভেড়ামারা উপজেলার জুনিয়াদহ ইউনিয়নের মন্ডলপাড়া গ্রামের পুনা মিয়ার ছেলে শিহাবুল ইসলাম শিহাব সরকারি রাস্তার জমি দখল করে পাকা বসতবাড়ি নির্মাণ কাজ শুরু করেছে। এ বিষয়ে এলাকাবাসীর পক্ষে মজিবর লস্কর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবর একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। এতে সরকারি জমি বেদখলের পাশাপাশি রাস্তায় মানুষজন চলাচলে বিঘ্ন ঘটার আশঙ্কা করছেন স্থানীয়রা। সরকারি জমি থেকে এ অবৈধ স্থাপনা অপসারণের দাবি জানিয়েছেন ভূক্তভোগীরা।
মজিবর লস্কর জানান, সরকারী উক্ত রাস্তাটি আমিসহ স্থানীয় লোকজন ব্যবহার করে আসছি প্রায় ৫০ বছর ধরে। শিহাবুল ইসলাম শিহাব তার পেশীশক্তি ব্যবহার করে স্থানীয় লোকজনের ভোগান্তি দিয়ে সর্বস্তরের মানুষের সাথে ঝগড়া বিবাদ সহ সব সময় শাসিয়ে আসছে। শিহাবের সাথে বারংবার সমাধানের জন্য বসলেও সমাধান না করে পূর্বের ন্যায় আরো উগ্র ও আগ্রাসী মনোভাব নিয়ে এখনো তার নির্মাণ কাজ চলমান রেখেছে।
সরকারি জমি দখলের অভিযোগ অস্বীকার করে শিহাবুল ইসলাম শিহাব জানান, জুনিয়াদহ ইউপি চেয়ারম্যান, পরিষদের ১২ জন মেম্বারসহ স্থানীয় গণ্যমান্য লোকজন সরেজমিনে উপস্থিত থেকে তারা দেখে গেছেন। সে অনুযায়ী আমি আমার ব্যক্তিগত জমিতে নির্মাণকাজ করছি।
জুনিয়াদহ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাসানুজ্জামান হাসান জানান, ইউনিয়ন পরিষদের সকল মেম্বারদের সাথে নিয়ে ঘটনাস্থলে যায়। গিয়ে যেটা বুঝতে পারলাম সেটা হলো ইউএনও বরাবর অভিযোগ কারী মজিবর লস্কর গত বার জুনিয়াদহ ইউপির মেম্বার পদে নির্বাচন করে পরাজিত হয়। শিহাবুল ইসলাম শিহাব সে মজিবর লস্করের পক্ষে নির্বাচন না করলে সেই থেকে একটা বিরোধ সৃষ্টি হয় তাদের মধ্যে। ।
ভেড়ামারা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) হাসিনা মমতাজ জানান, একটি লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত পূর্বক ব্যাবস্থা নেওয়া হবে।

Post a Comment

0 Comments