বঙ্গবন্ধু কীর্তিতে অবিনশ্বর কাব্যগ্রন্থটি আনুষ্ঠানিক ভাবে উদ্বোধন করেন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা মণ্ডলীর সদস্য রশিদুল আলম

চেতনায় কুষ্টিয়া প্রতিবেদক ॥ কুষ্টিয়ার ভেড়ামারা প্রেসক্লাব’র সভাপতি ও  চেতনায় কুষ্টিয়া পত্রিকার সম্পাদক ও প্রকাশক প্রভাষক জাহাঙ্গীর হোসেন জুয়েল এর সম্পাদনায় বঙ্গবন্ধু কীর্তিতে অবিনশ্বর কাব্যগ্রন্থটি গতকাল কুষ্টিয়া সার্কিট হাউজে আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধন করেন যুদ্ধাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা, সাবেক সংস্থাপন মন্ত্রনালয়ের সচিব, বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্য ও বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক উপ-কমিটি'র সভাপতি রশিদুল আলম।
ভেড়ামারা প্রেসক্লাব'র সভাপতি ও  চেতনায় কুষ্টিয়া পত্রিকার সম্পাদক ও প্রকাশক প্রভাষক জাহাঙ্গীর হোসেন জুয়েলের সভাপতিত্বে উপস্থিত ছিলেন, কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজের অবসরপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ ও ইয়াসিন- মাহমুদা স্মৃতি পরিষদের সভাপতি ডা. ইফতেখার মাহমুদ,কুষ্টিয়া জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আজগর আলী, সহ-সভাপতি ডা. আমিনুল হক রতন, ডা. লিজা-রতন ম্যাটসের চেয়ারম্যান ডা. আসমা জাহান লিজা, ভেড়ামারা সরকারী কলেজের সদস্য ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আক্তারুজ্জামান মিঠু, ভেড়ামারা সরকারী পাইলট মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের সভাপতি ও সাবেক মেয়র আলহাজ্ব শামিমুল ইসলাম ছানা, কুষ্টিয়া জেলা শিক্ষা অফিসার জায়েদুর রহমান, ভেড়ামারা সরকারী কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ খলিল উল্লাহ. ভেড়ামারা সরকারী পাইলট মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আঃ জব্বার প্রমুখ। বঙ্গবন্ধু কীর্তিতে অবিনশ্বর কাব্যগ্রন্থটি সম্পাদনা করেছেন  ভেড়ামারা প্রেসক্লাব'র সভাপতি ও  চেতনায় কুষ্টিয়া পত্রিকার সম্পাদক ও প্রকাশক প্রভাষক জাহাঙ্গীর হোসেন জুয়েল।
যুদ্ধাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা, সাবেক সংস্থাপন মন্ত্রনালয়ের সচিব, বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্য ও বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক উপ-কমিটি'র সভাপতি রশিদুল আলম বলেন, নতুন প্রজন্মকে মহান মুক্তিযুদ্ধের সঠিক ইতিহাস জানাতে হবে। দেশের জন্মের সঠিক ইতিহাস না জানা জাতি বেশিদূর এগোতে পারে না। সেজন্য নতুন প্রজন্মকে মহান মুক্তিযুদ্ধের সঠিক ইতিহাস জানাতে হবে। মুক্তিযুদ্ধের কথা যেন আমাদের পরবর্তী প্রজন্ম স্মরণ রাখে সেজন্য পাঠ্যসূচিতে ব্যাপক পরিবর্তন আনা প্রয়োজন। মুক্তিযোদ্ধাদের বীরত্ব গাঁথার পাশাপাশি স্বাধীনতা বিরোধীদের ঘৃণ্য তৎপরতাও নতুন প্রজন্মকে জানাতে হবে।
আওয়ামী লীগের উপদেষ্টামণ্ডলীর এই সদস্য আরো বলেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এ দেশকে স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়তে চেয়েছিলেন। বঙ্গবন্ধুকে হত্যার বহু বছর পর দেশের হাল ধরেছেন তারই কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ার অসমাপ্ত কাজ সমাপ্ত করছেন তিনি।

Post a Comment

0 Comments