কুমারখালীতে ১ হাজার ১২ টি করোনা টিকা এসে পৌঁছেছে

কুমারখালী প্রতিনিধি  \ কুষ্টিয়া জেলায় কুমারখালী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে  প্রথম ধাপে ১ হাজার ১২ টি ডোজ করোনা টিকা (ভ্যাকসিন) এসে পৌঁছেছে। আগামী ৭ ফেব্রুয়ারি থেকে সারাদেশে ন্যায়  জেলায় বিনামূল্যে করোনা টিকাদান (ভ্যাকসিন) কার্যক্রম শুরু করা হবে। বৃহস্পতিবার (৪ ফেব্রুয়ারী) দুপুরে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে  ফ্রিজার গাড়িতে ২ টি বক্সে করে আনা ভ্যাকসিনগুলো গ্রহণ করেন, উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা: আকুল উদ্দিন। এই সময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রাজীবুল ইসলাম খান, পৌর মেয়র সামছুজ্জামান অরুণ, উপজেলা সহকারী  কমিশনার (ভূমি) মুহাইমিন আল জিহান। এই ভ্যাকসিন উপজেলা ইপিআই কোল্ড স্টোরেজ আলাদা ২ থেকে ৮ ডিগ্রি সেন্টিগ্রেট তাপমাত্রায় আইএলআর ফ্রিজে সংরক্ষণ করা হয়।
 উপজেলা প: প: স্বাস্থ্য কর্মকর্তা  আকুল উদ্দিন জানান, উপজেলা বরাদ্দ কৃত প্রথম ধাপে ১ হাজার ১২ টি ভ্যাকসিন এসে পৌঁছেছে। এতে ৯ হাজারের বেশি মানুষ কে ডোস দেওয়া যাবে। যারা জীবনের ঝুঁকি নিয়ে দেশ ও জনগণের জন্য দায়িত্ব পালন করেছেন তারাই  আগে এই ভ্যাকসিন পাবেন। পর্যায়ক্রমে অন্যরাও এ কার্যক্রমের আওতায় আসবেন।
টিকা প্রয়োগের কাজে ৬ জন কর্মী নিয়োজিত থাকবে। এরমধ্যে চারজন ডাক্তার ও দু’জন মাঠ পর্যায়ের স্বাস্থ্যকর্মী। ৮ সপ্তাহের ব্যবধানে দু’টি ডোজের মাধ্যমে টিকা দেওয়া হবে। আগামী ৭ ফেব্রুয়ারি হাসপাতালে বিনামূল্যে ভ্যাকসিন প্রয়োগের কার্যক্রম শুরু করা হবে বলে জানান তিনি।
জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ জানিয়েছে, ইতোমধ্যে করোনা প্রতিরোধ ভ্যাকসিন যথাযথ তদারকির জন্য জেলার উচ্চ পর্যায়ের ব্যক্তিদের নিয়ে ১৬ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি গঠন করা হয়েছে। এতে জেলা প্রশাসক মোঃ আসলাম হোসেন  সভাপতি ও সিভিল সার্জন ডা : এইচ এম আনোয়ারুল ইসলাম কে সদস্য সচিব মনোনীত করা হয়। টিকার ব্যবহার ও কার্যক্রম নিশ্চিত করতে কমিটি সার্বিক দায়িত্ব পালন করবেন।

Post a Comment

0 Comments