কুষ্টিয়ায় ধান কাটার শ্রমিক সংকট

চেতনায় কুষ্টিয়া প্রতিবেদক \\ করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধে সারা দেশে গণপরিবহন বন্ধ থাকায় কৃষি শ্রমিকদের চলাচল সীমিত হয়েছে। ফলে অনেক এলাকার মতো কুষ্টিয়া জেলায় ধান কাটার শ্রমিক পাওয়া যাচ্ছে না।
এতে দুশ্চিন্তায় পড়েছেন কৃষকরা। তবে স্থানীয় কৃষি বিভাগ জানিয়েছে, এ সংকট থেকে উত্তরণে কৃষকদের ধান কাটার যন্ত্র সরবরাহ করা হচ্ছে। এতে দ্রæত সময়ে ধান কেটে ঘরে তুলতে পারবেন চাষিরা।কুষ্টিয়া জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, চলতি বছরে কুষ্টিয়ায় ৩১ হাজার ২৭৫ হেক্টর জমিতে বোরো ধান চাষ করা হয়েছে। এসব ধান কাটার জন্য কৃষকদের ৫০ ভাগ ভর্তুকিতে কম্বাইন্ড হার্ভেস্টার দিচ্ছে কৃষি অফিস।উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা রমেশ চন্দ্র ঘোষ বলেন, ‘কৃষকরা যাতে ঠিক সময়ে ধান কাটতে পারেন, এজন্য আমরা যন্ত্র ব্যবহারের ওপর জোর দিচ্ছি। প্রধানমন্ত্রীর দিকনির্দেশনা অনুযায়ী বোরো মৌসুমে কৃষকের ধান কাটার সমস্যা সমাধানে ৫০ শতাংশ ভর্তুকিতে কম্বাইন্ড হার্ভেস্টার মেশিন দিচ্ছি। অনেক সময় শ্রমিক সংকটে ধান নষ্ট হয়ে যায়। কম্বাইন্ড হার্ভেস্টার ব্যবহারের ফলে কৃষকের ধান আর নষ্ট হবে না।’কুষ্টিয়া জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তদরের অতিরিক্ত উপ-পরিচালক (শস্য) রঞ্জন কুমার বলেন, ‘আমরা জেলাব্যাপী যান্ত্রিক পদ্ধতিতে ধান কাটার ওপর জোর দিচ্ছি।’

Post a Comment

0 Comments