ভেড়ামারায় অপহরণের ৬দিন পর যুবকের লাশ উদ্ধার ॥ গ্রেফতার-১



চেতনায় কুষ্টিয়া প্রতিবেদক ॥ কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় অপহরণের ৬দিন পর ইমরান হোসেন (২৩) নামের এক যুবকের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। সে উপজেলার বারো মাইল টিকটিকি পাড়া গ্রামের ইয়ারুল ইসলাম চাঁদু মিয়ার পুত্র।
বুধবার উপজেলার মুন্সীপাড়া পদ্মা নদীর তীর থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়। এ ব্যাপারে ভেড়ামারা  থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে। পুলিশ রওশন আলী নামে একজনকে গ্রেফতার করেছে।
ঈুলিশ সুত্রে জানা যায়, গত  ২৩ ডিসেম্বর ভেড়ামারা উপজেলার বারো মাইল টিকটিকি পাড়া গ্রামের ইয়ারুল ইসলাম চাঁদু মিয়ার পুত্র ইমরান হোসেনকে দুস্কৃতিকারী অপহরণ করে। এ ঘটনায় ওই দিনই নিহতের মাতা শেফালী খাতুন  বাদী হয়ে ৪জনকে আসামী করে ভেড়ামারা থানায় একটি মামলা দায়ের করে। আসামীরা হচ্ছে বারো মাইল গ্রামের ইয়াসিন আলীর পুত্র হাসান ও হারুন, এবং একই এলাকার আব্দুর রশিদ’র পুত্র রহিম ও রওশন। ২৪ ডিসেম্বর ভেড়ামারা থানা পুলিশ রওশনকে গ্রেফতার করে। মুন্সীপাড়া পদ্মী নদীর তীরে নিহত ইমরানের লাশ ভাসতে দেখে এলাকাবাসী পুলিশে খবর দেয়। খবর পেয়ে ভেড়ামারা থানা পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করে।

Post a Comment

0 Comments