ভেড়ামারা হাসপাতালে বিনা চিকিৎসায় রোগী’র মৃত্যু ॥ হাসপাতাল ভাঙচুর ॥ আটক-১

কুষ্টিয়ার ভেড়ামারা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লে¬ক্্র বিনা চিকিৎসায় শাহিন (৩৩) এর মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় উত্তেজিত জনতা হাসপাতালের জরুরী বিভাগ ভাঙচুর করেছে। হাসপাতালে ডাঃ আমিরুল ইসলামের ডিউ থাকা সত্বেও তিনি ভেড়ামারা শহরের নিজ ক্লিনিকে অবস্থান করেন। হাসপাতলে ডাক্তার না থাকার কারণে রোগীর মৃত্যু হয়েছে বলে দাবী করেছে তার পরিবার। এ ঘটনায় পুলিশ ১ জনকে আটক করেছে। এ ব্যাপারে ভেড়ামারা থানায় ১টি মামলা দায়ের হয়েছে।

ভেড়ামারা থানা, এলাকাবাসী ও মৃত’র পরিবার সুত্রে জানা গেছে, ভেড়ামারা উপজেলার ধরমপুর ইউনিয়নের বৃত্তিপাড়া এলাকার মৃত হারুন এর ছেলে শাহিন (৩৩) বৃহস্পতিবার বিকালে ষ্ট্রোক করে। এলাকাবাসী দ্রুত শাহিন কে ভেড়ামারা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লে¬ক্র নিয়ে আসলে তাকে জরুরী বিভাগে ভর্তি করা হয়। এ সময় হাসপাতালে কোন ডাক্তার ছিলো না। উক্ত হাসপাতালে ডাঃ আমিরুল ইসলামের ডিউ থাকা সত্বেও তিনি হাসপাতালে না থেকে ভেড়ামারা শহরের নিজ ক্লিনিকে অবস্থান করেন। ডাঃ আমিরুল ইসলাম হাসপাতালে না থাকার কারণে বিনা চিকিৎসায় বৃহস্পতিবার বিকালে শাহিন হাসপাতালে মারা যায়। শাহিন মারা যাওয়ার পর উত্তেজিত জনতা হাসপাতালের জরুরী বিভাগ ভাঙচুর করে এবং পরে ডাঃ আমিরুল ইসলামের ক্লিনিক ভাঙচুর করেন । এ ব্যাপারে ভেড়ামারা থানায় হাসপাতাল কতৃপক্ষ ১টি মামলা দায়ের করেছে।  এ ঘটনায় ভেড়ামারা থানা পুলিশ লান্টু (৪৫) কে আটক করেছে।
ভেড়ামারা উপজেলা স্বাস্থ্য ও প: প: কর্মকর্তা ডা: রঞ্জন কুমার দত্ত জানান, হাসপাতালে ডিউটি ছিলো ডাঃ আমিরুল ইসলামের। হাসপাতালের জরুরী বিভাগ ভাঙচুর করায় থানায় ১টি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

Post a Comment

0 Comments