কুষ্টিয়ার মিরপুরে জাসদ নেতাকে প্রকাশ্যে গুলি করে হত্যা

 কুষ্টিয়ার মিরপুর উপজেলার পোড়াদহ ইউনিয়নের আহমেদপুর বাজারে প্রকাশ্যে দুর্বৃত্তদের গুলিতে জাসদ নেতা ও একাধিক মামলার আসামি ইসমাইল হোসেন পাঞ্জের (৫৫) নিহত হয়েছেন। এসময় দুর্বৃত্তদের গুলিতে আহত হয়েছেন স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতা শফিকুল ইসলাম (৪৮)। আজ সোমবার সকাল ৬টায় আহমেদপুর বাজারের একটি চায়ের দোকানে এ ঘটনা ঘটে। 
নিহত পাঞ্জের’র ছেলে মিটন জানান, প্রতিদিনের মতো আজও তার বাবা হাঁটতে বের হন। এক পর্যায়ে স্থানীয় আহমেদপুর বাজারের আব্দুর রশিদের চায়ের দোকানে বসে আত্মীয় শফিকুলকে নিয়ে চা খাচ্ছিলেন। এসময় একটি মোটরসাইকেলে তিন যুবক এসে তাদের উপর গুলি চালিয়ে দ্রুত চলে যায়। গুলিবিদ্ধ অবস্থায় দু’জনকেই কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে নেয়া হলে ডাক্তার পাঞ্জেরকে মৃত ঘোষণা করেন। আর শফিকুল ইসলাম আশঙ্কাজনক অবস্থায় চিকিৎসাধীন রয়েছেন। নিহত পাঞ্জের মিরপুর উপজেলা জাসদের সাবেক সহ-সভাপতি। তার বিরুদ্ধে হত্যা ও অস্ত্র আইনে একাধিক মামলা রয়েছে। গত মার্চের ২০ তারিখে একটি হত্যা মামলায় জামিন নিয়ে পাঞ্জের জেলা কারাগার থেকে মুক্ত হয়ে বাড়িতে অবস্থান করছিলেন। গুলিবিদ্ধ আহত শফিকুল পোড়াদহ ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক। তারা আহমেদপুর গ্রামের বাসিন্দা। আহমেদপুর বাজারের ওই চায়ের দোকানদার আব্দুর রশিদ জানান, সকালে পাঞ্জের ও শফিকুল দোকানে এসে চা খাচ্ছিলেন। এসময় একটি মোটর সাইকেলে তিন যুবক এসে তাদের লক্ষ্য করে অতর্কিত তিন রাউন্ড গুলি করে পালিয়ে যায়।
কুষ্টিয়ার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সোহেল রেজা জানিয়েছেন, এলাকায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে স্থানীয় প্রতিপক্ষ দুলালের সঙ্গে পাঞ্জেরের বিরোধ চলে আসছিল। এটাকে সামনে রেখেই পুলিশ এগুচ্ছে। হত্যাকারীদের গ্রেফতারে ইতিমধ্যেই অভিযান শুরু হয়েছে।

Post a Comment

0 Comments